ক্যানসারের প্রকোপ বাড়ছে বছরে মারা যাচ্ছে ৯১ হাজার

মো. কামরুজ্জামান। বয়স ২৮। ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে হেমাটোলজি বিভাগে ভর্তি হয়ে চিকিৎসা নিচ্ছেন। মরণব্যাধি ব্লাড ক্যানসারে ভুগছেন তিনি। গেল বছরের ১৪ই নভেম্বর ঢামেক হাসপাতালে ভর্তি হন। ৯০১ ওয়ার্ডের ২৫ নম্বর বিছানায় শুয়ে কী যেন ভাবছেন তিনি। পাশেই তার স্ত্রী বসা। ৩১শে জানুয়ারি সরজমিন ওয়ার্ডে গেলে তার স্ত্রী জানান, চিকিৎসকরা জানিয়েছেন তার স্বামীর ব্লাড ক্যানসার হয়েছে। তাদের বাড়ি গোপালগঞ্জ জেলায়। শুধু কামরুজ্জামান নন, দেশে বছরে এক লাখ ২২ হাজার লোক ক্যানসারে আক্রান্ত হন। মারা যায় ৯১ হাজার। বাংলাদেশে ১৬ থেকে ১৭ লাখ ক্যানসার রোগী রয়েছেন। ক্যানসারের রোগী বেড়েই চলছে। দিন দিন রোগী বাড়লেও চিকিৎসা নিয়ে হিমশিম খেতে হচ্ছে রোগী এবং চিকিৎসকদের। বর্তমানে দেশে আশঙ্কাজনক হারে বেড়ে চলেছে ক্যানসার আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা। প্রতি বছর নতুনভাবে জরায়ুমুখ ও স্তন ক্যানসারে আক্রান্ত হয় ২৬ হাজার ৭৯২ জন। এরমধ্যে ১১ হাজার ৯৫৬ জন মহিলা জরায়ুর ক্যানসারে এবং ১৪ হাজার ৮৩৬ জন মহিলা স্তন ক্যানসারে আক্রান্ত হয়। মারা যায় প্রায় ১৪ হাজার। বিশেজ্ঞদের মতে, অতিমাত্রায় তামাকজাত দ্রব্য সেবনের কারণে অনেকে আক্রান্ত হচ্ছে ফুসফুস ক্যানসারে। আবার অনিরাপদ খাদ্যগ্রহণকেও চিকিৎসকরা ক্যানসারের একটি অন্যতম কারণ হিসেবে দেখছেন। কৃষিতে রাসায়নিক ও কীটনাশকের অনিয়ন্ত্রিত ব্যবহার খাদ্যদ্রব্যকে করে তুলছে অনিরাপদ। এর ওপর রয়েছে ফলমূল ও মাছে ফরমালিনের ব্যবহার। বায়ুদূষণকেও ক্যানসার বিস্তারের আরো একটি কারণ বলে মনে করেন তারা। বাতাসে সীসার পরিমাণ বৃদ্ধি ক্যানসারের ঝুঁকি আরো বাড়িয়ে দিচ্ছে। Read more



0 0 vote
Article Rating